সোনারগাঁওয়ে করোনার ওষুধের কারখানা!

0
73

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ে একটি কারখানায় গোপনে ‘করোনার ওষুধ’ তৈরির অভিযোগে তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। এ ঘটনায় র‌্যাব-১১-এর ডিএডি কামাল হোসেন মোল্লা বাদী হয়ে সোনারগাঁও থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

র‌্যাব-১১ গতকাল মঙ্গলবার সকালে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, করোনায় আতঙ্কিত সাধারণ মানুষের সরলতার সুযোগে কিছু অসাধু লোক ‘নিহারিকা মান্না’ নামে একটি পাউডার তৈরি করে আসছে। এ ওষুধ ‘করোনা প্রতিরোধে কার্যকরী’ বলে বাজারজাত করছে। খবর পেয়ে সোমবার দুপুরে সোনারগাঁও থানার সাদিপুর এলাকায় অভিযান

চালায় র‌্যাব। এ সময় ভেজাল ও মানহীন ওষুধসহ হাতেনাতে মো. নিজাম উদ্দিন (৩৯), মো. খাদেম হোসেন (৩০) ও মো. আমিনুল ইসলাম (১৮) নামে তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ছাড়া কারখানায় তৈরি ১৮০ গ্রাম ওজনের ১০২ জার ‘নিহারিকা মান্না’ পাউডার জব্দ করা হয়।

গ্রেপ্তারদের জিজ্ঞাসাবাদ ও প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা যায়, তারা পরস্পর যোগসাজশে দীর্ঘদিন ধরে সাদিপুর এলাকায় ছানোয়ারের বাসা ভাড়া নিয়ে ‘গ্লোবাল গেইন কনজুমার প্রোডাক্টস লি.’ নামক ফ্যাক্টরি চালিয়ে আসছিল। সেখানে ‘নিহারিকা’ ব্র্যান্ড নাম দিয়ে ‘নিহারিকা মান্না’ পাউডার উৎপাদন করে করোনা রোগের ওষুধ হিসেবে বাজারজাত করে আসছে। এ ধরনের ওষুধ উৎপাদন ও বিক্রি জনস্বাস্থ্যের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর ও হুমকি স্বরূপ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here