মশা মারা সহজ, কিন্তু মাছি মারা এত কঠিন কেন?

0
50

বলিউড ছবিতে স্লো মোশন দৌড় দেখেছেন?

নায়িকা-নায়ক পরস্পরের দিকে ছুটছে, নয়ত নায়ক ছুটছে ভিলেনের দিকে। আরো কত।

মাছিরা আমাদের সবাইকে সেভাবেই দেখে। মাছি মারার জন্যে যে চাপড়টা মারছেন সেটা মাছি দেখে স্লো মোশনে। চার ভাগের এক ভাগ গতিতে। কারন, মাছি সেকেন্ডে ২৫০টি ফ্রেম (ফ্ল্যাশ) দেখতে পায় আর মানুষ দেখে ৬০টি।

ওপরের ছবিতে যে স্লো মোশন দেখছেন সেটি ২.৫ ভাগ গতিতে দেখতে পাচ্ছেন। মাছি আমাদের এর থেকেও বেশি স্লো মোশনে দেখে। হলিউড লেভেল স্লো মোশন।

এই স্লো মোশন আবার তারা দেখে তিনটে চোখ দিয়ে। তার মানে মাথার পেছনেও তারা দেখতে পায়। চুপি চুপি গিয়ে তার ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ার আশার গুড়ে বালি। প্রচুর বালি।

তারওপরে মাছি দৃশ্যেন্দ্রিয় প্রসেস করে আমাদের সাত গুণ গতিতে। কি দেখছি বুঝতে আমাদের যা সময় লাগে, মাছির সময় লাগে তার সাত ভাগের এক ভাগ সময়। পৃথিবীর সেরা কুংফু মাস্টারও তার কাছে নস্যি। শস্তা নস্যি।

আপনি কি করছেন সেটা মাছি সহজেই দেখতে পায়, স্লো মোশনে দেখতে পায় আর ফাস্ট মোশনে বুঝে ফেলে। তারপর? তারপর সেকেন্ডে ২০০ বার ডানা ঝাপটে পালিয়ে যায়। কোনো অ্যাকশন হিরোরও সে ক্ষমতা নেই (ডিসি ইউনিভার্সের ফ্ল্যাশ ছাড়া)।

পালিয়ে যাবার সময়ে তাদের ওড়ার ক্ষমতাও সাংঘাতিক। ৯০ ডিগ্রি খাড়া উঠতে পারে, নামতেও পারে। দ্রুত উড়তে উড়তে ব্রেক কষে উল্টো ঘুরে যেতে পারে। ডিগবাজি খেতে পারে যে কোনো দিকে। অত্যন্ত দ্রুত গতিতে। কোনো বিমান আজ অব্দি মাছির দক্ষতার কাছাকাছিও যেতে পারেনি।

মানুষ-মাছি দ্বন্দ্বে মাছি আছে ওপরের ছবির বেড়ালটার ভূমিকায়। আর মানুষ? কচ্ছপের ভূমিকায়।

তাই বলি চাপড়া-চাপড়ি না করে মাছি মারতে ব্যবহার করুন আঠা-কাগজ। মাছি উড়ে এসে কাগজে বসলেই চিত্তির। আর দেখতে হবে না। তারপর আপনি তাকে সহজেই মারতে পারবেন। স্লো মোশনে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here