ফাঁ’সির রায়ের পর টাকা চাইলেন রিফাত, হাসলেনও

0
177

বরগুনার আ’লোচিত রিফাত শরীফ হ’ত্যা মা’মলার রায় ঘোষণা করা হয় বুধবার (৩০ সেপ্টেম্বর)। এই মা’মলায় রায়ে ৬ জনের ফাঁ’সির আদেশ দিয়েছেন আ’দালত। বিচারক রায় পড়ার পুরো সময়জুড়েই শান্ত ও স্থির ছিলেন মিন্নি। এদিকে এই রায়ের পর আরেক মৃ’ত্যুদ’ণ্ডপ্রাপ্ত আ’সামি রাকিবুল হাসান রিফাত ফরাজীকে হাসতে দেখা গেছে।

    
রায় ঘোষণার পর আ’সামিদের আ’দালত থেকে কারাগারে নেওয়ার সময় রিফাত হাসতে হাসতে প্রিজন ভ্যানে ওঠেন। এ সময় ভ্যানে উঠেই তিনি হাতের ইশারায় কারো কাছে টাকাও চান।

বুধবার বিকেল ২টা ৫৫ মিনিটের সময় এ দৃশ্যের অবতারণা হয় বরগুনার জে’লা ও দায়রা জজ আ’দালতের প্রধান ফট’কে। রায় ঘোষণার পর ফাঁ’সির দ’ণ্ডে দ’ন্ডিত এ মা’মলার ছয় আ’সামির মধ্যে মিন্নি ও আল কাইয়ুম ওরফে রাব্বি আকন ব্যতিত অন্য সকল আ’সামিকে স্বাভাবিক দেখা যায়।

এ সময় প্রিজন ভ্যানের ভেতর থেকে উচ্চস্বরে রিফাত ফরাজী বলেন, ‘আম’রা যা করেছি তা আল্লাহই করিয়েছে। আর ভবিষ্যতেও যা হবে, তাও আল্লাহই করাবেন।’ পরে আ’দালত থেকে প্রিজনভ্যানের ভেতরেই উল্লাস করতে করবে কারাগারে যান তারা।
    
২০১৯ সালের ২৬ জুন বরগুনা সরকারি কলেজের সামনে শত শত লোকের উপস্থিতিতে স্ত্রী’র সামনে রিফাত শরীফকে (২৫) কু‌‌’পিয়ে হ’ত্যা করা হয়। পরে ওই ঘটনার একটি ভিডিও ফেসবুকে ভাই’রাল হয়। ঘটনার পরদিন ১২ জনের নাম উল্লেখ করে অ’জ্ঞাত আরও পাঁচ-ছয়জনের বি’রুদ্ধে মা’মলা করেন রিফাতের বাবা আবদুল হালিম দুলাল শরীফ।
    
গত ১ সেপ্টেম্বর রিফাত শরীফ হ’ত্যা মা’মলায় রিফাতের স্ত্রী’ মিন্নিসহ ২৪ জনের বি’রুদ্ধে বরগুনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আ’দালতে দুই ভাগে বিভক্ত অ’ভিযোগপত্র দেয় পু’লিশ। একই সঙ্গে রিফাত হ’ত্যা মা’মলার এক নম্বর আ’সামি নয়ন ব’ন্ড ব’ন্দুকযু’দ্ধে নি’হত হওয়ায় তাকে মা’মলা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়। নৃ’শংসভাবে রিফাতকে কু‌‌’পিয়ে হ’ত্যার বহুল আ’লোচিত এ মা’মলায় পু’লিশ যে ২৪ জনের বি’রুদ্ধে অ’ভিযোগপত্র দিয়েছিল, তাদের মধ্যে প্রাপ্তবয়স্ক ১০ জনের বিচার চলে জজ আ’দালতে। এরমধ্যে ৬ জনের মৃ’ত্যুদ’ণ্ড দেন আ’দালত। ৪ জনের বি’রুদ্ধে অ’ভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় খালাস পান তারা। বাকি ১৪ জন অ’প্রাপ্তবয়স্ক হওয়ায় তাদের বিচার চলছে বরগুনার শি’শু আ’দালতে আলাদাভাবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here