করোনায় জুমার নামাজ নিয়ে আজহারীর পরামর্শ

0
27

জুমার নামাজ আদায়ে যে পরামর্শ দিলেন আজহারী।

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে বিশ্বজুড়ে। এরইমধ্যে যেসব জায়গায় মানুষ বেশি জড়ো হয় সেসব স্থান এড়িয়ে চলা কিংবা বাড়তি সতর্কতার পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা। এ মধ্যে খেলাধুলার স্থান, সিনেমা হল থেকে শুরু করে ধর্মীয় স্থানও রয়েছে। যদিও বাংলাদেশের মতো মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশগুলোতে জুমার নামাজের সময় বাড়ি সতর্কতা অবলম্বনের পরামর্শ দেয়া হচ্ছে।

করোনাভাইরাসের এই সংকটময় সময়ে জুমার নামাজ আদায়ে কিছু পরামর্শ দিয়েছেন জনপ্রিয় ইসলামী বক্তা মিজানুর রহমান আজহারী। বৃহস্পতিবার নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে ‘নিরাপদে থাকুন আপনারা, নিরাপদে থাকুক আমার বাংলাদেশ’ শিরোনামে একটি স্ট্যাটাসে ইমাম, খতিব, মসুল্লি ও মসজিদ কর্তৃপক্ষের উদ্দেশ্যে তিনি এসব পরামর্শ দেন।

আজহারী তার স্ট্যাটাসে লেখেন, এই মুহূর্তে আমরা একটি ক্রুসাল মোমেন্ট পার করছি। যেহেতু বাংলাদেশ একটি জনবহুল দেশ। তাই বাংলাদেশে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ব্যাপক ভাবে ছড়িয়ে পড়লে সেটা সামাল দেয়া আমাদের পক্ষে সম্ভব নাও হতে পারে।
বহির্বিশ্বের অন্যান্য মুসলিম দেশের মত যেহেতু রাষ্ট্রীয় ভাবে জুমু’আর সালাত বন্ধের ঘোষণা এখনো আসেনি তাই, আগামীকাল জুমু’আর সালাতে অংশগ্রহনের ক্ষেত্রে সতর্কতামূলক নিম্নের পরামর্শ গুলো মেনে চলার চেষ্টা করুন।

সম্মানিত খতীব মহোদয়গণের প্রতি:
১. আলোচনা ও খুতবা সংক্ষিপ্ত করুন।
২. স্বাস্থ্য সুরক্ষায় করোনা ভাইরাস থেকে বাঁচতে চিকিৎসকদের গাইডলাইন গুলো শেয়ার করুন।
৩. ইসলামে পরিচ্ছন্নতার গুরুত্ব নিয়ে আলোকপাত করুন।
৪. তাওবা, ইস্তিগফার ও পাপের জন্য সিজদায় কাঁদতে উদ্বুদ্ধ করুন।

মসজিদ কতৃপক্ষের প্রতি:
১. ডেটল বা সেভলন দিয়ে মসজিদের ফ্লোর মুছে রাখুন।
২. ওজু খানায় সাবান বা হ্যান্ড স্যুপ রাখুন।

মুসল্লিদের প্রতি:
১. নিকটবর্তী মসজিদে জুমার সালাত আদায় করুন।
২. সাথে করে মাস্ক, টিস্যু ও জায়নামাজ নিয়ে যান।
৩. আপাতত মুসাফাহা করা থেকে বিরত থাকুন।
৪. জ্বর, কাশি, সর্দি ইত্যাদিতে আক্রান্ত থাকলে ঘরে জোহরের নামাজ পড়ুন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here